৭ মার্চের ভাষণ বারবার আমাদের অনুপ্রেরণা জাগিয়ে তোলে: মোকতাদির চৌধুরী

স্টাফ রিপোর্টার:

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণকে পৃথিবীর অন্যতম শ্রেষ্ঠ ভাষণ উল্লেখ করে বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা র আ ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী এমপি’ বলেছেন, ৭ মার্চের ভাষণ আজও স্বাধীনতাকামী মানুষের কাছে অনুপ্রেরণা হয়ে আছে।’

৭ মার্চ উপলক্ষে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও পৌরসভার নবনির্বাচিত মেয়র নায়ার কবিরের সভাপতিত্বে রোববার বিকালে শহীদ ধীরেন্দ্র নাথ দত্ত ভাষা চত্বরে আয়োজিত সমাবেশে মোকতাদির চৌধুরী এমপি আরও বলেন, ‘৭ মার্চের বক্তব্যের প্রতিটি শব্দ, প্রতিটি বাক্য আমাদের বারবার অনুপ্রেরণা জাগিয়ে তোলে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের বক্তব্যের আবেদন অপরিসীম। এ বক্তব্য বিশ্বব্যাপী স্বাধীনতা অনুরাগী মানুষের অনুপ্রেরণার উৎস হয়ে থাকবে।’ তিনি বলেন, ‘যারা ইতিমধ্যেই স্বাধীনতা অর্জন করেছে, তারাও এই ভাষণ থেকে দেশাত্মবোধে, রাজনৈতিকভাবে আদর্শবান হয়ে ওঠায় ও দেশের জন্য সর্বোচ্চ আত্মত্যাগের অনুপ্রেরণা পেতে পারে।’

তিনি বলেন, ‘১৯৭১ সালের ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণ নিছক বক্তব্য ছিল না। এই ভাষণের মাধ্যমে বঙ্গবন্ধু গেরিলাযুদ্ধের দিকনির্দেশনা ও ভবিষ্যৎ বাংলাদেশের রূপরেখা তুলে ধরেছিলেন।

বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেসার ভূমিকার কথা স্মরণ করে তিনি বলেন, বঙ্গমাতা বলেছিলেন, ‘অনেক লোক অনেক কথা বলতে পারে-তাদের কারও কোনো কথা শোনার প্রয়োজন নাই। তোমার যা মনে আসে তুমি শুধু তাই বলবে এবং তা-ই হয়তো দেশের মানুষের কাছে সত্য হয়ে উঠবে।’

মোকতাদির চৌধুরী বলেন, ‘৭ মার্চের ভাষণ মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য বিশাল অনুপ্রেরণার উৎস হিসেবে কাজ করেছে। মুক্তিযুদ্ধের সময় দেশের আনাচে-কানাচে অসংখ্যবার বজ্রকণ্ঠ হিসেবে এ ভাষণ বাজানো হয়েছে।’

৭মার্চ জনসভায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গোলাম মহিউদ্দিন খান খোকনের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক পৌর চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আল মামুন সরকার, জেলা আ.লীগের সহ-সভাপতি মুজিবুর রহমান বাবুল, সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুর আলম খোকন, সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আবুল কালাম ভূইয়া,সাধারণ সম্পাদক এমএইচ মাহবুব আলম,
শহর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম, জেলা যুবলীগের সভাপতি এড.শাহানুর আলম, জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এড. তাসলিমা সুলতানা খানম নিশাত, জেলা জেলা কৃষক লীগের সভাপতি সাদেকুর রহমান শরীফ, শ্রমিকলীগের সাধারণ সম্পাদক এ এম মালেক চৌধুরী, জেলা যুবমহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক আলম তারা দুলি, জেলা সেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইদুজ্জামান আরিফ, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সভাপতি রবিউল হোসেন রুবেল, সাধারন সম্পাদক শাহাদাৎ হোসেন শোভন প্রমূখ

৭ মার্চ উপলক্ষে আয়োজিত জনসভায় আওয়ামীলীগ ও তার অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Related posts

Facebook Comments

Default Comments

Leave a Comment